শিরোনাম:
ঢাকা, শনিবার, ৮ মে ২০২১, ২৪ বৈশাখ ১৪২৮
Songjog24
বৃহস্পতিবার ● ২২ এপ্রিল ২০২১
প্রচ্ছদ » বরিশাল » বরিশাল মহানগর ছাত্রলীগ সভাপতির বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও অবৈধ গর্ভপাতের মামলা
প্রচ্ছদ » বরিশাল » বরিশাল মহানগর ছাত্রলীগ সভাপতির বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও অবৈধ গর্ভপাতের মামলা
৭৫ বার পঠিত
বৃহস্পতিবার ● ২২ এপ্রিল ২০২১
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

বরিশাল মহানগর ছাত্রলীগ সভাপতির বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও অবৈধ গর্ভপাতের মামলা

সংযোগ টোয়েন্টিফোর ডেস্ক:

---

বরিশাল মহানগর ছাত্রলীগ সভাপতি জসিম উদ্দিনের বিরুদ্ধে ধর্ষণ এবং অবৈধভাবে গর্ভপাতের অভিযোগে মামলা হয়েছে। নগরীর ২৯ নম্বর ওয়ার্ডের ইছাকাঠী এলাকার এক নারী বাদী হয়ে গত বুধবার রাতে এই মামলা দায়ের করেন। এর আগে গত সোমবার রাতে নগরীর বিমানবন্দর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন ওই নারী। প্রাথমিক তদন্তে অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় তার বিরুদ্ধে মামলা রুজু করার পাশাপাশি ওই নারীকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য মেডিকেলে পাঠানোর কথা বলেন বিমান বন্দর থানার ওসি কমলেশ চন্দ্র হালদার।

জসিম নগরীর সাগরদী ব্রাঞ্চ রোডের বাসিন্দা শুক্কুর আলীর ছেলে। গত ১৮ এপ্রিল আনুষ্ঠানিকভাবে অন্যত্র বিয়ে করনে তিনি।

বিমানবন্দর থানার ওসি জানান, নগরীর ২৯ নম্বর ওয়ার্ডের ইছাকাঠী এলাকার এক নারী গত সোমবার রাতে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগে ওই নারী উল্লেখ করেন, গত ৮ বছর ধরে জসিমের সাথে প্রেমের সম্পর্ক চলে আসছে তার। ২০১৯ সালের ১০ সেপ্টেম্বর ওই নারীর বাসায় গিয়ে তাকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ধর্ষন করে জসিম। এ ঘটনায় ওই নারী অন্তঃস্বত্তা হয়ে পড়লে তাকে অবৈধভাবে গর্ভপাত করানো হয়।
এরপর ঢাকাসহ বিভিন্ন স্থানে নিয়ে একাধিকবার ধর্ষন করার কথা অভিযোগে উল্লেখ করা হয়। সবশেষ গত ৫ মার্চ রাতে ওই নারীর বাসায় গিয়ে তাকে ৩ বার ধর্ষন করে জসিম। পরে বিয়ের জন্য জসিমকে চাপ দেয় সে। এ সময় জসিম অন্যত্র বিয়ে করেছে এবং তাকে বিয়ে করবে না বলে সাফ জানিয়ে দেয়। এতে ওই নারী মানসিকভাবে ভেঙ্গে পড়ে। আত্মীয়-স্বজনের সাথে পরামর্শ করে থানায় অভিযোগ দায়ের করেন তিনি।

মহানগর ছাত্রলীগ সভাপতি জসিম উদ্দিন বলেন, এটা তার বিরুদ্ধে নতুন করে দলীয় প্রতিপক্ষের ষড়যন্ত্র। এ বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন করে আনুষ্ঠানিক প্রতিক্রিয়া জানানোর কথা বলেন তিনি।

বিমান বন্দর থানার ওসি কমলেশ চন্দ্র হালদার বলেন, এক নারীর লিখিত অভিযোগ প্রাথমিক তদন্ত করে মামলা হিসেবে রুজু করা হয়েছে। ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য নারীকে মেডিকেলে পাঠানো হয়েছে। মামলার অভিযোগ তদন্ত করে যথাযথ আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার কথা বলেন তিনি।



আর্কাইভ

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)